YouTube এর টাকা কিভাবে হাতে পৌছায়? (বিস্তারিত)

Earning : ৳1.000

আসসালামু আলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহু। প্রিয় বন্ধুগণ, আজকে আমরা দারুন একটি বিষয় নিয়ে আলোচনা করব। সেটা হলো যে, কিভাবে ইউটিউব এর টাকা হাতে পাওয়া যায়। বা ইউটিউব এর টাকা হাতে কিভাবে ইউটিউবাররা পাই? এই জাতীয় যতই প্রশ্ন থাকুক না কেন টাকাটা হাতে কিভাবে ইউটিউব থেকে আসে, এই প্রশ্নটা আমরা সকলেই করে থাকি।

বিশেষ আমরা যারা ইউটিউবে আর্নিং করতে এসেছি,,, তারাই এই জাতীয় সকল প্রশ্ন গুলো করে থাকে। ঠিক এ কারণেই আজকের আর্টিকেলে আমরা, শিখতে অথবা জানতে চলেছি,,,, কিভাবে ইউটিউব এর টাকা হাতে পর্যন্ত পৌঁছায়? টাকা আসতে কেমন সময় লাগে ইত্যাদি। বিষয়বস্তু গুলো নিয়েও আমরা বিস্তারিত ভাবে আলোচনা করব।

অনলাইনে কিভাবে ইউটিউবে কিভাবে টাকা ইনকাম করতে হয়? এ বিষয়ে আমরা এই আর্টিকেল পাবলিশ করার পূর্বে আর্টিকেল পাবলিশ করেছিলাম। ওই আর্টিকেলটা দেখলে আপনারা a2z বুঝতে পারবেন, যে কিভাবে ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করতে হয়। এ আর্টিকেলে আমরা সংক্ষিপ্ত আকারে এ বিষয়ে একটু আলোচনা করব। তারপর এই আর্টিকেল এর মূল বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব।

ইউটিউব থেকে টাকা কিভাবে ইনকাম করতে হয় সংক্ষিপ্ত ভাবে আলোচনা!

ইউটিউব হলো সারাবিশ্বের খুবই জনপ্রিয় একটি কম্পানি। যেখানে যে কেউ চাইলেই ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করতে পারে। ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য তেমন কোনো যোগ্যতা দক্ষতা প্রয়োজন হয় না। শুধুমাত্র মানুষের প্রয়োজনীয় দরকারি ভিডিও তৈরি করতে, পারলেই আপনি ইউটিউবে ইনকাম করতে পারবেন।

ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য প্রথমে ইউটিউবে একটি চ্যানেল তৈরি করতে হয়। আপনারা সরাসরি youtube.com ওয়েবসাইটে গিয়ে সহজ একটি চ্যানেল তৈরি করতে পারবেন। শুধুমাত্র আপনার জিমেইল আইডি দিয়ে একটি চ্যানেল তৈরি করা যায় ইউটিউব এ। এমনকি সম্পূর্ণ ফ্রিতে আপনারা ইউটিউব থেকে চ্যানেল তৈরি করে আরনিং শুরু করতে পারবেন।

ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু যেভাবেঃ ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু করার জন্য, আপনাকে অবশ্যই ইউটিউবে একটি চ্যানেল তৈরি করে। সেই চ্যানেলে অনেক ভিডিও আপলোড করতে হবে। যখন আপনার ইউটিউব চ্যানেলে ইউটিউব এর শর্তগুলো পূরণ হয়ে যাবে। তখন আপনারা কি ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু করতে পারবেন।

ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু করার জন্য, ইউটিউব এর কিছু শর্ত রয়েছে। ইউটিউবে আপনার পার্টনার প্রোগ্রাম এর সাথে যুক্ত হয়ে সহজে ইউটিউবে ইনকাম শুরু করতে পারবেন। ইউটিউবে যে, শর্তগুলো ফুলফিল পূরণ করে ইনকাম শুরু করতে হয় তা নিচে দেওয়া হল।

  1. আপনার ইউটিউব চ্যানেলের সর্বনিম্ন 1000 সাবস্ক্রাইব থাকতে হবে।
  2. আপনার ইউটিউব চ্যানেলে অবশ্যই 4000 ঘন্টা ওয়াচ টাইম থাকতে হবে।
  3. আপনার ইউটিউব চ্যানেলের কমপক্ষে উপরোক্ত দুটি কাজ 12 মাসের ভিতরে কমপ্লিট করতে হবে।

প্রিয় বন্ধুরা উপরোক্ত শর্তগুলো পূরণ করতে পারলেই, আপনারা ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করার আবেদন পাঠাতে পারবেন। যেমন ইউটিউব থেকে টাকা আয় করার জন্য পার্টনার প্রোগ্রামের যুক্ত হতে হয়। আপনার ইউটিউব চ্যানেলের মনিটাইজেশন অন করলেই আপনার ইনকাম ইউটিউব শুরু হয়ে যাবে। আর উপরোক্ত শর্তগুলো পূরণ করলেই আপনারা, আপনার ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন এর জন্য এপ্লাই করতে পারবে।

আপনার ইউটিউব চ্যানেলের মনিটাইজেশন অন হয়ে গেলেই, ইউটিউব থেকে আপনারা টাকা ইনকাম শুরু করতে পারবেন। তো যাই হোক বন্ধুরা এই ছিল আমাদের, ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করার সংক্ষিপ্ত বিবরণ। তাই এখন আমরা বিস্তারিত এই সম্পর্কে জানব যে, কিভাবে ইউটিউব এর ইনকাম করা টাকা হাতে পর্যন্ত আসে।

ইউটিউব থেকে কিভাবে টাকা হাতে পৌঁছায়?

ইউটিউব থেকে ইনকামঃ যখন আপনি ইউটিউব একটি চ্যানেল তৈরি করবেন, এবং ওই চ্যানেলে মানুষের প্রয়োজনীয় ভিডিও গুলো দিবেন। যেন মানুষের আপনার ভিডিওগুলো দেখতে পছন্দ করে। তবে কখনই খারাপ অশ্লীল আজেবাজে ভিডিও আপলোড করবেন না। তারপর যখন youtube-এর শর্তগুলো পূরণ করে,

আপনার চ্যানেল মনিটাইজেশন অন করতে পারবেন, তখনই কেবল মাত্র আপনার ইউটিউবে ইনকাম শুরু হবে। তবে আপনি তাদের শর্ত পূরণ করে শুধুমাত্র ইনকাম করার জন্য তৈরি হয়েছেন। কিন্তু আপনার ইনকাম ইউটিউবে শুরু হয়নি। কেননা ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু করার জন্য, আপনাকে আরেকটি নেটওয়ার্ক এর সাথে যুক্ত হতে হবে ‌।

আর সে নেটওয়ার্কটি হল গুগল এডসেন্স। এই গুগল এডসেন্স থেকেই ইউটিউব এর ইনকাম শুরু হয়। এমনকি এই ইউটিউব এর টাকা এডসেন্সের মাধ্যমে আপনারা উত্তোলন করতে পারবেন। বুঝতে পারিনি! আচ্ছা চলুন বিস্তারিত এ সম্পর্কে আমরা একটু ডিটেইলস জেনে নিই। যেমনিভাবে ইউটিউব থেকে ইনকাম করার জন্য মনিটাইজেশন অন করার জন্য, ইউটিউব এর কাছে আবেদন করতে হয়।

তেমনি ভাবে এডসেন্স থেকে আপনার ইউটিউব এর ইনকাম শুরু করার জন্য, অ্যাডসেন্সে আবেদন করতে হয়। বুঝতে পেরেছেন! আপনি যখন আপনার ইউটিউব এর জন্য গুগল এডসেন্স এর আবেদন করবেন, তখন সে কোম্পানি আপনার অ্যাকাউন্ট অ্যাপ্রুভ করবে কিনা এর জন্য রিভিউ করে। এবং কিছুদিনের ভিতরেই ফলাফল জানিয়ে দেয়।

গুগল অ্যাডসেন্স থেকে ইউটিউব এর টাকা হাতে কিভাবে পৌঁছায়?

গুগল এডসেন্সঃ আপনি যখন আপনার ইউটিউব চ্যানেলের জন্য, অ্যাডসেন্স এর কাছে আবেদন করবেন। তখন তারা রিভিউ করে ফলাফল জানিয়ে দিবে। এবং আপনার একাউন্টে যদি এপ্রুভ হয়, তাহলে কেবলমাত্র আপনারা ইউটিউব থেকে ইনকাম সাথে সাথেই শুরু করতে পারবেন। সাধারণত ইউটিউবে এডসেন্স এর বিজ্ঞাপন দেখেই ইনকাম করা যায়।

এডসেন্স এর বিজ্ঞাপন গুলো ইউটিউবে দেখিয়ে চলছে আপনারা ইনকাম শুরু করতে পারবেন। ইউটিউব এর ইনকাম গুলো আপনারা গুগোল অ্যাডসেন্সে দেখতে পারবেন। গুগোল অ্যাডসেন্সে ইউটিউব এর টাকা জমা হতে মিনিমাম 15 16 তারিখ টাইম লাগে। অর্থাৎ ইউটিউব এর ইনকাম গুলোর সাথে সাথে এডসেন্স একাউন্টে জমা হয় না। এডসেন্স একাউন্টে ইউটিউব এর ইনকাম আসতে একটু সময় নিয়ে থাকে।

যেভাবে ইউটিউব এর টাকা উত্তোলন করতে হয়ঃ যখন আপনারা ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম শুরু করে দিবেন, সেই সকল টাকা আপনারা গুগোল অ্যাডসেন্সে দেখতে পারবেন। এখন আপনারা যদি, আপনার গুগোল অ্যাডসেন্সে নির্দিষ্ট পরিমাণে এমাউন্ট একাউন্টে থাকে তাহলে, আপনার ইউটিউব এর টাকা তখনই আপনি উত্তোলন করে নিতে পারবেন।

তবে গুগল এডসেন্স থেকে টাকা উত্তোলন করার একটু অন্যরকম সিস্টেম রয়েছে। যেমন, আপনার গুগল এডসেন্স একাউন্ট সর্বপ্রথমেই 10 ডলার ইনকাম হতে হবে। যখন আপনার গুগল এডসেন্স একাউন্টে 10 ডলার জমা হবে, তখনই আপনাকে আপনার গুগল এডসেন্স এর এড্রেস ভেরিফাই করতে হবে। ভেরিফাই করা হয়ে গেলে আপনারা আপনাদের দেশের যেকোন ব্যাংক একাউন্ট এড করতে পারবেন।

যখন আপনারা গুগোল অ্যাডসেন্সে আপনার যেকোন ব্যাংক একাউন্ট এড করবেন, তখনি কিন্তু গুগল আপনাকে টাকা পাঠিয়ে দিবে না। ইউটিউব থেকে টাকা উত্তোলন করার জন্য, আপনার গুগল এডসেন্স একাউন্টে আরো অনেক ইনকাম করতে হবে। যেমন সর্বনিম্ন 90 ডলার এবং আগে ছিল 10 ডলার অর্থাৎ মোট 100 ডলার। 100 ডলার যখন আপনার একাউন্টে জমা হবে,

তখন গুগল অটোমেটিক্যালি ওই মাসের শেষের দিকে আপনার একাউন্টে টাকা পাঠিয়ে দিবে। এই টাকা আপনার ব্যাংক একাউন্টে সরাসরি গুগোল পাঠিয়ে দিবে তবে, তার জন্য আপনাকে এক্সট্রা করে গুগোল এর কাছে রিকুয়েস্ট অনুরোধ পাঠাতে হবে না। আপনার ইনকাম 100 ডলার হলেই এই মাসের শেষের দিকে গুগোল টাকা পাঠিয়ে দিবে। ঠিক এভাবে করে আপনারা ইউটিউব এর টাকা হাতে পেতে পারেন।

আর্টিকেল এর শেষ কথা

প্রিয় বন্ধুরা, আজকে আমরা খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয় নিয়ে আলোচনা করেছি, সেটা হল যে, কিভাবে ইউটিউব এর টাকা হাতে পর্যন্ত ইউটিউব দিয়ে থাকে। এবং আপনি কিভাবে হাতে টাকা পাবেন ইউটিউব থেকে, এই সকল বিষয়বস্তু গুলো নিয়ে আমরা step-by-step আলোচনা করেছি। আর্টিকেল সম্পর্কিত যদি কোন প্রশ্ন অথবা মতামত থাকে তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করবেন।

বরাবরের মত সবাই ভাল থাকুন সুস্থ থাকুন এবং নিরাপদে থাকুন। আমাদের আজকের টিউনটি পড়ার জন্য সবাইকে অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ। আজকের আর্টিকেলটি এ পর্যন্তই। আশা করি আবার দেখা হবে অন্য কোন আর্টিকেলে। এই আশা ব্যক্ত করেই আজকের আর্টিকেলটি শেষ করছি,,, আসসালামু আলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহ।

Related Articles
Comments

You must be logged in to post a comment.

লেখক সম্পর্কেঃ

সকলকে জানাতে চাই ও জানতে চাই!

আপনার জন্য আরও লেখা: