অনলাইন থেকে টাকা আয় | টাকা আয় করে আপনিও হন স্বাবলম্বী

Earning : ৳3.600

আপনারা যারা বেকার। বা বেকারত্ব জীবন নিয়ে বড় আর্তনাদ জীবন জাপন করতেছেন। আপনাদের জন্য একটা সুখব হবে এই পোস্টটি। আশাকরি সবাই পুরো পোস্টটি মন দিয়ে পড়ে নিবেন।

আমাদের চ্যানেলটি সাবসক্রাইব করুন

আপনিও হয়তো শুনে থাকবেন, ইন্টারনেট থেকে টাকা আয় করা যায়। বা অনলাইন থেকে ইনকাম। 

তবে হয় তো কখনো ভাবেননি যে এটা কিভাবে? বা ভাবলেও করার সমার্থ হয়নি। বিভিন্ন ভাবে ধোকা খেয়েছেন। তাই আপনার জন্য আমাদের এই পোস্টটি। আশা করি এই পোস্টের থেকে আপনি যে ঞ্জান অর্জন করতে পারবেন। সেটার মাধ্যমে ইন্টারনেট থেকে খুব সহজে টাকা আয় হবে।

আমি এই পোস্টে কয়েকটি ইন্টারনেট এর ইনকাম করার বিষয় আলোচনা করবো। সেখানে 

  • অ্যাপ তৈরি করে টাকা আয়। 
  • পি.টি.সি. সাইট বা সার্ভে করে টাকা আয়। 
  • লেখালেখি বা ব্লগিং করে টাকা আয় করার উপায় জানিয়ে দিব।

প্রথমেই আমি আপনাদের সহজ আবার কঠিন একটা বিষয় জানাবো। আর সেটাই অ্যাপ তৈরি করে টাকা আয়। 

কিভাবে অ্যাপ তৈরি করে টাকা আয় করা যায় 

আমরা আমাদের মোবাইলে অনেক রকমের অ্যাপ ব্যবহার করে থাকি। তার মধ্যে গেইম, ইনকাম অ্যাপ, সোস্যাল মিডিয়া, নিউজ, এডিটিং, বই, ক্যালেন্ডার সহ নানান রকমের অ্যাপ ব্যবহার করে থাকি। 

তবে আপনি যদি না যেনে থাকেন এই অ্যাপ থেকে অ্যাপের কম্পানি বা মালিক কিভাবে টাকা আয় করে। 

তাহলে আপনার জন্য বলছি, আমরা অ্যাপ ব্যবহার করার সময় অনেক অ্যাড বা বিঞ্জাপন দেখে থাকি। আর মুলত এই বিঞ্জাপন দেখানোর মাধ্যমেই অ্যাপ তৈরিকারি ইনকাম করে থাকেন।

আবার অনেকে অ্যাপে কিছু পেইড সার্ভিস বিক্রি করে টাকা আয় করে। তবে বেশির ভাগ অ্যাপ বিঞ্জাপন থেকে টাকা আয় করে। 

আপনিও চাইলে অ্যাপ তৈরি করে টাকা আয় করতে পারেন। তবে বলতে পারেন, অ্যাপ তৈরি করা কি ভাত মাছ নাকি?

আপনাদের এই অস্বাভাবিক প্রশ্নের উত্তর আজ দিব। এটা ভাত মাছ না যদিও তবে, তেমন কঠিনও না। সবাই পারলে আপনি কেন পারবেন না।

একটু সময় নিয়ে কাজ করা শিখে নিন। অবশ্যই পারবেন। সামান্য একটা ধারনা থাকলেই অ্যাপের সোর্স ফাইল বা aia ফাইল এডিট করে টাকা আয় করা যায়। 

তাছাড়াও appcreator24 নামে একটা ওয়েবসাইট আছে। এটা থেকে কোডিং বা ব্লগিং না করেই অনেক ভালো মানের অ্যাপ তৈরি করে নিতে পারে।

appgayser নামে আরো একটা ওয়েবসাইট আছে, এখান থেকে vpn অ্যাপ সহ আরো অনেক ভালো মানের অ্যাপ তৈরি করে টাকা আয় করতে পারেন। 

আরো এরকম অনেক অনেক অ্যাপ তৈরি করার সাইট আছে।

আপনার তৈরি করা অ্যাপে খুব সহজেই গুগল অ্যাডমোব, ইউনাটি, স্টার্ট অ্যাপ, অ্যাপ লভিন সহ অন্য যে কোন অ্যাপের অ্যাড পাবলিশর কম্পানির অ্যাড ব্যবহার করে টাকা আয় করতে পারেন। 

p.t.c সাইট বা সার্ভে করে টাকা আয় 

অনেক সময় শুনে থাকবেন, অ্যাড ক্লিক বা ট্যাস্ক ভিউ করে টাকা আয়ের কথা। এটা শুনলেও অনেকেই এটা তেমন ভালো ভাবে নেয় না। কারন মনে করে এটা সম্ভব না হয়তো। 

তবে এটা আসলে সম্ভব। আপনিও চাইলে এই অ্যাড ক্লিক করে টাকা আয় করতে পারেন। আর এই কাজ যে ওয়েবসাইটগুলোতে করা যায়, তাকেই ptc সাইট বলে।

সার্ভে করে টাকা আয় করা যায়, এটা জানেনা এমন মানুষ খুবই কম রয়েছে ইন্টারনেটে। ইন্টারনেট থেকে ইনকামের অন্যতম একটা পথ হলো সার্ভে করে টাকা আয়। 

বাংলাদেশ থেকে যদিও সব সার্ভে করা যায় না, তার পরেও যা করা যায় তা থেকেই মোটামুটি ভালো টাকা আয় করা সম্ভব। 

আবার vps ব্যবহার করে যে কোন সার্ভে সাইটে কাজ করা যায়। তাই আপনিও চাইলে সার্ভে নিয়ে কাজ করতে পারেন। আর সার্ভে করেও লক্ষ টাকা আয় করে যাচ্ছে অনেকে।

লেখালেখি বা ব্লগিং করে টাকা আয় 

আমাদের শেষ বিষয় হলো লেখালেখি বা ব্লগিং করে টাকা আয় করা। এই কাজটা অত্যন্ত সহজ আর ভালো ইনকামের রাস্তা। আমিও এই কাজটাই করি।

আপনি চাইলে এই ওয়েবসাইটে আপনার জানা যে কোন বিষয় বস্তুর উপর লেখালেখি করে টাকা আয় করতে পারেন। 

আবার চাইলে নিজেও ব্লগ সাইট খুলে সেখানে লেখালেখি করে টাকা আয় করতে পারেন। লেখালেখির যোগ্যতা বা অভ্যাস থাকলে অনলাইন থেকে টাকা আয় করা অত্যন্ত সহজ। 

তাই এই বিষয় দক্ষ হয়ে আপনিও আমাদের মতো আপনার অনলাইন ক্যারিয়ার গঠন করুন। বেকারত্ব দূর করুন। নিজেকে নিজের উপর ভরসা করতে শেখান।

অনলাইনে ইনকামের অনেক পথ রয়েছে। আমরা জানিনা তাই ইনকাম করতে পারি না। আমি চেষ্টা করবো এই সাইটের মাধ্যমে ইন্টারনেট থেকে ইনকামের কিছু বিষয় আপনাদের সাথে শেয়ার করার।

সবাই ভালো থাকুন।

Comments

You must be logged in to post a comment.