Telegram থেকে টাকা ইনকাম করার সেরা 7 টি পদ্ধতি

আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহু। প্রিয় বন্ধুরা আমরা হয়তো যারা অনলাইনে থাকেন তারা টেলিগ্রাম নাম শুনেছেন।আমরা আজকে টেলিগ্রাম থেকে টাকা ইনকাম করার উপায় নিয়ে আলোচনা করব।বিভিন্ন উপায় অবলম্বন করে সহজে টেলিগ্রাম থেকে আয় করা যায়। আজকের আর্টিকেলে আমরা শিখতে চলেছি বা জানতে চলেছি,,,  টেলিগ্রাম থেকে টাকা ইনকাম করার সেরা সাতটি উপায়?

টেলিগ্রাম থেকে ইনকাম করার এক নম্বর উপায়ঃ

ডিজিটাল মার্কেটিং করে ইনকাম: খুবই জনপ্রিয় একটি পদ্ধতি ডিজিটাল মার্কেটিং করা। অনেক অনেক লোক ডিজিটাল মার্কেটিং নিজের পেশা হিসেবে কাজ করে।এমনকি ডিজিটাল মার্কেটিং করে প্রতিমাসে লক্ষাধিক টাকা আয় করা খুবই সহজ।এখন আপনারা চাইলেই ডিজিটাল মার্কেটিং আপনার টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে করতে পারবেন।

তবে তার জন্য আপনার টেলিগ্রামে অবশ্যই ভিউয়ার্স বা ফলোয়ার থাকতে হবে।ফলোয়ার ব্যতীত কখনোই আপনি টেলিগ্রাম থেকে ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন না। আপনার টেলিগ্রামে অবশ্যই কমপক্ষে 5 থেকে 10 হাজার ফলোয়ার থাকতে হবে। তাহলেই আপনারা আপনার টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন।

ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় যেভাবেঃ ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য নানা ধরনের প্লাটফর্ম রয়েছে। এগুলোতে জয়েন হয়ে আপনারা খুব সহজে ডিজিটাল মার্কেটিং করতে পারবেন। ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করে যেভাবে সেটা বোঝানোর জন্য, একটি উদাহরণ দিয়ে আপনাকে বলি। ধরুন আপনি একটি প্লাটফর্মে যুক্ত হলেন ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য,

এখন ওই কোম্পানি আপনাকে বলবে এই অ্যাপ্লিকেশনটি প্রচার করুন। অ্যাপ্লিকেশনটি যত লোক ডাউনলোড ইনস্টল করবে তাতে আপনি কমিশন পাবেন। যদি আপনার প্রচার করা অ্যাপ্লিকেশনটি 10000 ডাউনলোড হয় তাহলে, ওই কোম্পানির আপনাকে দিবে 10 ডলার। ঠিক এভাবে করেই আপনাকে ডিজিটাল মার্কেটিং করতে হবে।আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং করে টাকা আয় করা যায়।

যদিও আমি উদাহরন হিসেবে আপনাদের কে বললাম। তবে ডিজিটাল মার্কেটিং করার জন্য আরও অনেক ধরনের কাজ রয়েছে। যেগুলো অবলম্বন করে খুব সহজে অনলাইনে ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন। এখন প্রশ্ন হল টেলিগ্রামে কিভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করা যায়? ঠিক একই ভাবে আপনি আপনার মার্কেটিং করার জন্য নির্দৃষ্ট জিনিসটি শেয়ার করবেন আপনার টেলিগ্রামে।

এমনভাবে প্রচার করবেন যেন আপনার ফলোয়ার খুব সহজে বুঝতে পারে। এবং তারা আগ্রহী হলে আপনার প্রচার করা জিনিসকে উপভোগ করতে চায়। ঠিক এভাবে করে আপনারা আপনার টেলিগ্রাম এর প্রচার করে সহজে আয় করতে পারবেন।আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে অনলাইনে টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে ডিজিটাল মার্কেটিং করে আয় করা যায় সেটা!

টেলিগ্রামে টাকা ইনকাম করার দুই নম্বর পদ্ধতি?

স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে আয়ঃ বর্তমান সময়ে স্পন্সর বিজ্ঞাপন খুবই জনপ্রিয় একটি পদ্ধতি অনলাইনে আয় করার জন্য।অনলাইনে যারা ইনকাম করতে চায় তারা বেশিরভাগ লোকই স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে আয় করতে ভালোবাসে। কারণ স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে অনলাইনে প্রচুর পরিমাণে টাকা ইনকাম করা যায়।আর এই কাজটি আপনি আপনার টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে খুব সহজেই করিয়ে আয় করতে পারবেন।

আপনি যদি টেলিগ্রামের মাধ্যমে স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে আয় করতে চান তাহলে,অবশ্যই আপনার টেলিগ্রামে কমপক্ষে 10 হাজার ফলোয়ার থাকতে হবে। তাহলেই কেবল আপনি স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে আয় করতে পারবেন টেলিগ্রামে। স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখে আয় করার জন্য, আপনাকে একটি কোম্পানির সাথে যুক্ত হতে হবে। যেমন বিকাশ কোম্পানি, গ্রামীন ফোন কোম্পানি, এয়ারটেল কোম্পানি ইত্যাদি।

এই ধরনের কোম্পানির সাথে আপনাকে যুক্ত হতে হবে স্পন্সর বিজ্ঞাপন এর জন্য। তারপর তাদের কাছে আবেদন করতে হবে আপনার টেলিগ্রামের স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখানোর জন্য। তারপর আপনি তাদের সাথে চুক্তি করে খুব সহজেই স্পন্সর বিজ্ঞাপন নিতে পারবেন। স্পন্সর বিজ্ঞাপন এখন আপনি আপনার টেলিগ্রামের ফলোয়ারদের কাছে তুলে ধরবেন।

যত লোভ এই স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখবে ততো আপনার ইনকাম হবে। আর যদি কেউ ক্লিক করে তাহলে ডবল ইনকাম হবে। এভাবে করে আপনারা স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখে টাকা আয় করতে পারবেন। আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে স্পন্সর বিজ্ঞাপন দেখিয়ে টেলিগ্রাম থেকে টাকা আয় করা যায় সেটা!

টেলিগ্রাম থেকে টাকা ইনকাম করার তিন নম্বর পদ্ধতি?

রেফার করে আয়ঃ অনলাইনে অনেক ধরনের আর্নিং ওয়েবসাইট এবং অ্যাপ্লিকেশন রয়েছে। যেখানে রেফার করে টাকা আয় করা যায় প্রচুর পরিমাণে। আপনারা চাইলেই এ ধরনের ওয়েবসাইট বা অ্যাপ্লিকেশনে যুক্ত হয়ে ইনকাম করতে পারেন। তার জন্য অবশ্যই আপনার ওয়েবসাইট বা অ্যাপ্লিকেশনটি বিশ্বস্ত হতে হবে। এবং তারা যেন রেফার করে আয় আর সুযোগ দেয়।

এই ধরনের ওয়েবসাইট বা অ্যাপ্লিকেশনে যুক্ত হয়ে খুব সহজেই আপনি ইনকাম করতে পারবেন। এ ধরনের অ্যাপ্লিকেশন বা ওয়েবসাইটের যুক্ত হওয়ার জন্য, সাধারণত আপনার পার্সোনাল কিছু ইনফরমেশন লাগবে।ইনফরমেশন গুলো দিয়ে আপনারা খুব সহজেই রেজিস্টার করে নিতে পারবেন। রেজিস্ট্রেশন করার পর আপনার একাউন্টে লগইন করুন।

এবং আপনার রেফারেল লিংক কপি করুন। কপি করার পর সুন্দর একটি আর্টিকেল আকারে সাজাবেন। যেন খুব সহজে মানুষ বুঝতে পারে লিংকে ক্লিক করলে কি হবে। তারপর আর্টিকেলটি আপনার টেলিগ্রামের ফলোয়ারদের কাছে শেয়ার করুন।তারা যেন অবশ্যই সহজ ভাষায় বুঝতে পারে আপনি তাদের কি বুঝাতে চাচ্ছেন।

দেখবেন যে খুব সহজে আপনার লিঙ্ক এ রেফার যুক্ত হয়ে যাবে। যদি তাদের প্রয়োজন হয়, আপনার আর্টিকেলটির তাদের কাছে শেয়ার এর উপর নির্ভর করবে তারা কত লোক আপনার রেফারেল লিংক এ জয়েন হবে। এখন যত লোক আপনার লিঙ্কে জয়েন হবে ততো আপনার ইনকাম হতে থাকবে। আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে রেফার করে টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে টাকা আয় করা যায় সেটা!

টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে টাকা ইনকাম করার 4 নম্বর পদ্ধতি?

ছবি বিক্রি করে আয়ঃ অনলাইনে আপনার হয়তো জানেন ছবি বিক্রি করে টাকা আয় করা যায়।এমনকি এই ওয়েবসাইটে আমি ছবি বিক্রি করে টাকা ইনকাম করার কয়েকটি পোস্ট করেছিলাম।ওই আর্টিকেলগুলো করলে আপনারা অবশ্যই বুঝতে পারবেন কিভাবে অনলাইনে ছবি বিক্রি করে টাকা আয় করা যায়।এখন এই কাজটি খুব সহজেই টেলিগ্রামের মাধ্যমে আপনি করতে পারবেন।

এবং ইনকাম করতে পারবেন। ছবি বিক্রি করে আয় করার জন্য আপনাকে একটি প্লাটফর্ম বা ওয়েবসাইটে যুক্ত হতে হবে। যুক্ত হওয়ার পর আপনাকে বিভিন্ন ধরনের মানুষের প্রয়োজনীয় ছবি পাবলিশ করাতে হবে।তারপর আপনার ছবিটি যত লোক ক্রয় করবে ওই কোম্পানি থেকে ততো আপনার ইনকাম আসতে থাকবে।একটিমাত্র ছবি দিয়ে প্রায় হাজার ডলার ইনকাম অসম্ভবের কিছু নয়।

এখন আপনারা চাইলেই আপনার ছবিগুলো আপনার টেলিগ্রামের ফলোয়ারদের কাছে শেয়ার করতে পারেন।তারা যদি কেউ আপনার ছবিটি ক্রয় করে তাহলে অবশ্যই আপনি কমিশন পেতেই থাকবে কোম্পানি থেকে। আর এই সহজ কাজটি করে আপনারা সহজেই টেলিগ্রাম আয় করতে পারবেন। আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে ছবি বিক্রি করে টাকা ইনকাম করা যায় সেটা!

টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে টাকা ইনকাম করার 5 নম্বর পদ্ধতি?

লিংক শর্ট করে আয়ঃ বর্তমান সময়ে লিংক শর্ট করে টাকা ইনকাম করার অনেক ওয়েবসাইট হয়েছে।এমনকি লিঙ্ক শর্ট করে প্রচুর পরিমাণে টাকা ইনকাম করা যায় বর্তমান সময়ে। আপনি যদি লিংক শর্ট করে আয় করতে চান তাহলে, অবশ্যই বিশ্বস্ত একটি ওয়েবসাইটের যুক্ত হতে হবে। যুক্ত হওয়ার জন্য আপনার পার্সোনাল কিছু ইনফরমেশন লাগবে।এই ইনফর্মেশন গুলো দিয়ে খুব সহজেই আপনারা সেখানে রেজিস্ট্রেশন করে নিতে পারবেন।

রেজিস্ট্রেশন করার পর একাউন্টে লগইন করবেন। এবং তারপর আপনি একটি লিংক শর্ট করে নিবেন। লিংক শট আপনারটি যদি কেউ ক্লিক করে তাহলে, ওই কম্পানি আপনাকে কমিশন দিবে।এবং এভাবে করেই আপনি লিঙ্ক শর্ট করে টাকা আয় করতে পারবেন। এখন এই সহজ কাজটি আপনি টেলিগ্রামের মাধ্যমে করতে পারবেন।

যে লিঙ্কটি শর্ট করেছেন সেটি খুব সুন্দর ভাবে একটি পোস্টিং আকারে সাজান। যেন কেউ খুব সহজে বুঝতে পারে আপনি তাদের কি বুঝাতে চাচ্ছেন। এবং তারপর আপনার টেলিগ্রামে এসে আপনার ফলোয়ার দের কাছে শেয়ার করুন বা প্রচার করুন। দেখবেন এখান থেকে আপনার অটোমেটিক্যালি তারা লিংকে ক্লিক করবে। কেউ বুঝে ক্লিক করতে পারে আবার কেউ না বুঝে ক্লিক করতে পারে।

তবে লিংকে ক্লিক করলে তো আপনার ইনকাম আসতে থাকে তাই না। ঠিক এভাবে করে আপনারা সহজে লিংক শর্ট করে টাকা আয় করতে পারবেন অনলাইনে।আশা করি আপনারা সকলেই বুঝতে পেরেছেন কিভাবে লিংক শর্ট করে টাকা টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে ইনকাম করতে হয় সেটা! তবুও যদি বুঝতে অসুবিধা হয় কমেন্ট করতে পারেন আমি অবশ্যই রিপ্লাই দিব।

টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে টাকা ইনকাম করার 6 নম্বর পদ্ধতি?

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে আয়ঃ অনলাইনে আয় করার অন্যতম জনপ্রিয় একটি পদ্ধতি হলো অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে ইনকাম। যে কেউ চাইলে অনলাইন অ্যাপলেট মার্কেটিং করে টাকা আয় করতে পারে।তাই আপনিও চাইলে ঘরে বসে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে খুব সহজে টাকা ইনকাম করতে পারেন।

এফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা ইনকাম যেভাবেঃ অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করার জন্য অনলাইনে অনেক বিশ্বস্ত প্ল্যাটফর্ম রয়েছে।আপনাকে এই প্ল্যাটফর্মগুলোতে যুক্ত হতে হবে যেখানে অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম চালু হয়েছে। পার্সোনাল কিছু ইনফরমেশন দিয়ে আপনারা খুব সহজেই জয়েন্ট হয়ে নিতে পারেন সেখানে। জয়েন হলেই তারা আপনাকে একটি আফিলিয়েট লিংক দিবে।

এই লিংকটি কোন গ্রাহক ক্লিক করে তাদের কোম্পানি থেকে কোন প্রোডাক্ট বা পণ্য ক্রয় করলে, ওই কোম্পানি আপনাকে কমিশন দিবে। এবং এভাবেই করেই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা আয় করতে হয়।এখন আপনারা এই সহজ কাজটি আপনার টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে করাতে পারেন। আপনার এফিলিয়েট লিংক টি আপনার টেলিগ্রামের ফলোয়ার যারা রয়েছে তাদের কাছে প্রচার করুন।

যাদের প্রয়োজন হবে তারা অবশ্যই আপনার লিংকে ক্লিক করে যেন প্লাটফর্মে ভিজিট করে। এভাবে করে তাদের কাছে বিস্তারিত বর্ণনা দিয়ে একটি পোস্ট করুন। তাহলে দেখবেন এই টেলিগ্রাম থেকে সহজেই আপনি অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে আয় করতে পারবেন।আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে টাকা আয় করা যায় সেটা!

টেলিগ্রাম থেকে টাকা ইনকাম করার সাত নম্বর পদ্ধতি?

নিজের ব্যবসা প্রচার করে আয়ঃ আপনি চাইলেই খুব সহজে আপনার নিজের ব্যবসা প্রচার করতে পারবেন টেলিগ্রামে।কারণ আপনার টেলিগ্রামই প্রচুর পরিমাণে নিশ্চয়ই ফলোয়ার রয়েছে। তাই আপনি চাইলেই নিজের ব্যবসা প্রচার করে সহজে আয় করতে পারবেন। যদিও এ আই টি আপনার নিজের ব্যবসার জন্য হবে। তবুও তো সেটা আপনার নিজেরই তাই না।

আপনার নিজের ব্যবসা প্রচার করার জন্য একইভাবে আপনারা সুন্দর একটি আর্টিকেল লিখবেন। যেখানে সবাইকে জানিয়ে দেবেন আপনার ব্যবসা সম্পর্কে। বিস্তারিত বিবরণ এবং মানুষের উপকার কি কি এগুলো সহজে যেন বুঝতে পারে। ঠিক এভাবে করে একটি নিজের মন মত আর্টিকেল তৈরি করবেন। এবং তারপর শেয়ার করবেন আপনার টেলিগ্রামে।

আপনার টেলিগ্রামে যেখানে আপনার ফলোয়ার রয়েছে তারা যেন সহজে বুঝতে পারে আপনি কি শেয়ার করেছেন। এবং তারা যেন আগ্রহী হয়ে আপনার প্রচার করা আর্টিকেলটি মন দিয়ে পড়ে। তাহলে দেখবেন অনেকেই আপনার ব্যবসা সম্পর্কে ক্লিয়ার ধারণা পাবে। এবং এভাবে আপনার ব্যবসাটি অনেক বড় জনপ্রিয় হতে থাকবে।যেটা কিনা আপনার ইনকাম এর জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।আশা করি আপনারা বুঝতে পেরেছেন কিভাবে টেলিগ্রাম এর মাধ্যমে নিজের ব্যবসা প্রচার করে আয় করা যায় সেটা!

আর্টিকেল এর শেষ কথা

প্রিয় বন্ধুরা আজকে আমরা টেলিগ্রাম থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায় এ বিষয়ে আলোচনা করেছি। তাছাড়া টেলিগ্রাম থেকে টাকা ইনকাম করার ৭ টি পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করেছি।যে পদ্ধতি গুলো অবলম্বন করে খুব সহজেই টেলিগ্রাম থেকে টাকা আয় করা যায়।আর্টিকেল সম্পর্কিত কোনো প্রশ্ন অথবা যদি কারো মতামত থাকে কমেন্ট করবেন। আমি অবশ্যই কমেন্টের রিপ্লে দেওয়ার চেষ্টা করব।

এতক্ষণ ধৈর্য ধরে আর্টিকেলটি পড়ার জন্য সবাইকে অসংখ্য ধন্যবাদ। আর্টিকেলটি যদি ভালো লাগে অবশ্যই বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন।আজকের আর্টিকেলটি এ পর্যন্তই দেখা হবে আবার অন্য কোন আর্টিকেলে। সবাই ভাল থাকুন সুস্থ থাকুন এবং নিরাপদে থাকুন। আসসালামুআলাইকুম ওয়ারাহমাতুল্লাহি ওয়াবারাকাতুহ।

Comments

You must be logged in to post a comment.

Related Articles
Recent Articles